শুক্রবার, ৩০ জুলাই, ২০১০

রংধনু

বেশ কয়েক দিন ধরে খুব বৃষ্টি হচ্ছে, রোজ ভোরে উঠেই আকাশে মেঘ দেখেছি. ঝম ঝম বৃষ্টি না হলেও ঝিরিঝিরি বৃষ্টি একটু পরপরই বিরতিহীন ভাবে পরেছে..বাংলা কেলেন্ডার-এর  হিসেবে বর্ষা কাল চলছে, এখন বোধহয় শ্রাবণ মাস চলে, বাংলা কেলেন্ডার দেখা হয়না , তাই সঠিক দিন ক্ষণ বলতে পারছিনা| 
আবহাওয়ার পরিবর্তন হয়েছে, জলবায়ু র উপর বিরূপ প্রতিক্রিয়া পরছে - এই ব্যপার গুলো আগে উপলব্ধি করতে পারতাম না, ইদানিং ব্যপারটা ধরতে পারছি. পত্রিকার প্রবন্ধ আর আমার পরিবেশবাদী বন্ধুদের কথার প্রভাব আমর চিন্তা ভাবনায় পড়তে শুরু করেছে, এর পেছনেও কারণ আছে- আজ সকালে রোদের উত্তাপ টা ভালই তের পেয়েছি . এই শ্রাবণ মাসে, গমগমে বৃষ্টির বদলে গ্রীষ্মের মতো রোদ, বড় কোনো পরিবর্তনের ফলাফল | গেলো দুই সপ্তাহ, বেশ কয়েক বার আকাশ ভেঙ্গে বৃষ্টি নামবে বলে মনে হয়েছে, কিন্তু মেঘ গুলো ঢাকার আকাশের উপর দিয়ে উত্তর দিকে চলে গেছে(সম্ভবত চেরাপুঞ্জিতে মেঘের মেলা হচ্ছে) | রিকশায় চলতি অবস্থায় আগে হুট উঠিয়ে, পলিথিন নিয়ে বসতাম, এই কয় দিন এমনটি ঘটেনি| বরঞ্চ, বৃষ্টির ঝাঁঝ কম থাকে অনেকের মতো আমিও ঝিরি গুড়ি বৃষ্টিতে দিব্যি রিক্সার হুট নামিয়ে ঘুরে বেরিয়েছি| 
আজ সকালের রোদ দেখার পর রঙধনুর কথা মনে হয়েছে, রঙধনু দেখা হয়না অনেকদিন, এই ধনুকের কথা প্রায় ভুলতে বসেছি| খুব রঙধনু দেখতে ইচ্ছা করছে, খুব করে চাইলাম, বিকেলে যেন রঙধনু দেখতে পাই. 
টুইটার আর ফেসবুকের জামানায়, আমিও ভালো তাল মিলাচ্ছি, নিজের মনের ইচ্ছা তুলে ধরলাম টুইটারের ১৪০ অঙ্কের ঘরে| এখন আবহাওয়া  আমাদের মতই ফাঁকিবাজ, বিকেল বেলা না বৃষ্টি , না রোদ| বিকেলের আচরণ হলো সাদা মাটা শরতের মতো|  
দিন শেষে অনলাইনে  ঢুকতেই সকালের ইচ্ছার কথা মনে পরে গেলো, কারণ আমার মতো আমার অনেক বন্ধুই এই ধনুকটা অনেক দিন দেখেনি| রঙ ধনু বাস্তবে আজ আর দেখা হইনি তবে কৃত্রিম রঙ ধনু দেখলাম - বন্ধুদের কমেন্টে আর গুগলের ইমেজ সার্চ থেকে এই ব্লগ লেখার আগে | আসল রঙধনুর দেখা চাই|
পুনশ্চ : এই ব্লগ লেখার পর বহুদিন পর বাংলা বর্ষপঞ্জি দেখলাম, আজ ১৫ই শ্রাবন, ১৪১৭|

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন