বুধবার, ২৭ অক্টোবর, ২০১০

টুকি টাকি নোট ১

যে নোট গুলো এখানে টুকে রাখবো, বেশির ভাগই জানা অথবা অজানা, হুট করে কেউ এই সব  নিয়ে জিজ্ঞেস করলে সাময়য়িক খটকা লাগে :
১. পেয়াজ কাটার সময় চুইংগাম চাবাতে থাকলে , চোখে পানি আসেনা | 
২. ৬ মাস বয়স পর্যন্ত শিশুরা একই সাথে চাবাতে ও নি:শ্বাস নিতে পারে|
৩. আপনি নতুন একটা কলম ব্যবহার করার জন্য, কালি ঠিক মতো বের হয় কিনা দেখার জন্য নিশ্চই কিছু লিখেন | ৯৭% লোক এ ক্ষেত্রে নিজের নাম লিখেন |
৪. স্ত্রী মশারা রক্ত পান করে, আর পুরুষরা সবজি ভূক |
৫. স্বাভাবিক মানুষ খালি চোখে ২০০ ডিগ্রী পর্যন্ত বিস্তীর্ণ দৃশ্য দেখতে পান |
৬. তরমুজ পাকলো কিনা বোঝার জন্য তরমুজে টোকা দিতে হবে , যদি ফাঁকা শব্দ করে তাহলে বুঝতে হবে তরমুজটা পাকা |
৭. কানাডিয়ানরা চিঠি পাঠানোর জন্য নিজেদের ব্যক্তিগত স্টাম্প ব্যবহার করতে পারেন, প্রত্যেক স্টাম্পে নিজের ছবি থাকবে |
৮.ছয় থেক আট সপ্তাহ বয়েসের পর শিশুদের চোখে কান্নার জন্য পানি আসে |
৯. গাছে ঠান্ডা পানি দিলে যতনা বাড়ে , তার চেয়ে বেশি বাড়ে যদি উষ্ণ পানি দিলে |

১০. সাহারা মরুভূমিতেও তুষারপাত ঘটে |  শেষ বার হয়েছিল ১৯৭৯ সালের ফেব্রুয়ারিতে|
১১. এক ঘন্টা কানে হেডফোন পরে থাকলে, বেকটেরিয়ার সংখা ৭০০ গুন বেড়ে যায় |
১২. মাইক্রো ওয়েভে আঙ্গুর গরম করলে বিস্ফোরিত হয় |



১৩. ঘুম থেকে উঠে চোখ কচলালে যে তারা গুলো দেখা যায়, সেগুলীয়র নাম ফসফেন |
১৪. মানুষের চোখের আকার জন্ম থেকে মৃত্যু পর্যন্ত অপর্বর্তিত থাকে, নাক আর কানের বৃদ্ধি কখনো থেমে থাকেনা |
১৫. আঙ্গুলের ছাপের মতো , মানুষের জিহবার ছাপ ও ভিন্ন ভিন্ন |
১৬. অনেকেই মনে করেন, চুইংগাম গিলে ফেললে তা পাকস্থলীর দেয়ালে আটকে থাকে, যা একটা ভুল ধারণা | চুইংগাম অন্যান্য খাবারের মতই পরিপাক হয়|
১৭. ৪০ ডিগ্রী সেন্টিগ্রেডে , নি:শ্বাস নেওয়ার সময় প্রতি ঘন্টায় ১৪.৪ কেলরী  শক্তি কমে |
১৮. সুইডেনের বরফের হোটেল প্রতি বছর নতুন করে বানানো হয় \
১৯. শুধুমাত্র বেড়াল গোত্রের প্রাণী , উট আর জিরাফ হাটার সময় একসাথে ডানপা , পরে একসাথে বাম পা ফেলে চলা ফেরা করে |
২০. চর্বি যুক্ত খাবারের পর পেয়াজ খেলে শরীরে কোলেস্টরল জমতে পারেনা |
২১. আঙ্গুল মটকানোর সময় যে শব্দ হয় ম তা আসলে নাইট্রোজেন গ্যাসের বুদবুদের বিস্ফোরণ |
একটি মন্তব্য পোস্ট করুন